বাংলাদেশ , বুধবার, ৫ আগস্ট ২০২০

তথ্যমন্ত্রী ড.হাছান মাহমুদ এমপি”চট্টগ্রামে আইসোলেশন সেন্টার উদ্বোধন করলেন

লেখক : সম্পাদক | প্রকাশ: ২০২০-০৬-১৪ ২২:৩৫:২১

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এমপি বলেছেন, সারা বিশ্বে করোনা মহামারী পরিস্থিতি এখনও বিপদজনক পর্যায়ে রয়েছে। যতদিন পর্যন্ত ভ্যাকসিন বা প্রতিষেধক আবিস্কৃত ও বাজারজাত হবে না, ততদিন পর্যন্ত করোনা পরিস্থিতির স্থায়ী নিরসন সম্ভব নয়।

 

তারপরও সারা বিশ্বের মত বাংলাদেশেও করোনা বিস্তার প্রতিরোধ এবং আক্রান্ত রোগীদের সাধ্যমত চিকিৎসা প্রদানের প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখার জন্য নতুন অর্থবছরের বাজেটে স্বাস্থ্যখাতকে বিশেষভাবে গুরুত্ব দিয়ে ২৯ হাজার ৩০ কোটি টাকা বরাদ্দ রাখা হয়েছে।

 

এটা মোট খাতওয়ারী বরাদ্দের ৭.৪ শতাংশ। এতে প্রতীয়মান হয় যে, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা করোনাজনিত উদ্ভুত পরিস্থিতি মোকাবেলা এবং সামাজিক ও অর্থনৈতিক সুরক্ষার জন্য সর্বাত্মক প্রয়াস অব্যাহত রেখেছেন এবং স্বাস্থ্যখাতকে আরো বেশি সেবামূলক ও কার্যক্ষম করার জন্য উদ্যোগ নিয়েছেন।

 

তথ্যমন্ত্রী আজ শনিবার (১৩ জুন) বিকালে আগ্রাবাদ এক্সেস রোডে কোভিড-১৯ রোগীদের চিকিৎসা সেবা প্রদানের লক্ষ্যে চসিকের ২৫০ শয্যার আইসোলেশন সেন্টারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

 

এসময় চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন এর মেয়র আ. জ. ম নাছির উদ্দিন এর সভাপতিত্বে কোভিড আইসোলেশন সেন্টার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বিভাগীয় কমিশনার এবিএম আজাদ, সিকম গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আমিরুল হক, চসিকের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সেলিম আক্তার চৌধুরী উপস্থিত ছিলেন।

 

সিটি কনভেনশন হল আইসোলেশনের পরিচালক ডা. সুশান্ত বড়ুয়ার সঞ্চালনায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার এ বি এম আজাদ, চসিক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সামসুদ্দোহা, চসিক প্রধান

 

প্রকৌশলী লে. কর্ণেল সোহেল আহমদ, সিকম গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আমিরুল হক, প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সেলিম আকতার চৌধুরী, বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. মোস্তফা খালেদ আহমেদ, ১৫ আনসার ব্যাটেলিয়ানের ডিরেক্টর এ

 

এস এম আজিজ উদ্দীন, বিএমএ চট্টগ্রামের সভাপতি ডা. মুজিবুল হক খান, তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী সুদীপ বসাক, সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বি, উপ-পুলিশ কমিশনার মোহাম্মদ ফারুক, কাউন্সিলর নাজমুল হক ডিউক, মো. এরশাদ উল্লাহ, সংরক্ষিত

 

ওয়ার্ড কাউন্সিলর ফারহানা জাবেদ, ডা. মোহাম্মদ আলী, আবু সাদাত মো. তৈয়ব, আনোয়ার জাহান, আইটি অফিসার ইকবাল হাসান, সেলিম রেজা, হালিশহর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email