বাংলাদেশ , শনিবার, ৬ জুন ২০২০

খাওয়ানোর পর জানলেন করোনাভাইরাসে আ,ক্রান্ত ১৫শ লোক

লেখক : সম্পাদক | প্রকাশ: ২০২০-০৪-০৮ ০৬:৫১:৩৮

ভারতের মধ্যপ্রদেশে সুরেশ নামের এক ব্যাক্তি প্রায় দেড় হাজার লোককে বাড়িতে ডেকে

খাওয়ানোর পর জানলেন তিনি করোনাভাইরাসেআ,ক্রান্ত।

স্থানীয় সরকার ইতিমধ্যে এলাকাটিকে করোনাভাইরাসের হটস্পট হিসেব চিহ্নিত করেছে,

 

পাশাপাশি পুরো এরিয়াকে লকডাউন ঘোষণা করেছে।

সুরেশ মধ্যপ্রদেশের ম’রেনা জে’লার দুবাই ফেরত প্রবাসী। গত ১৭ তারিখে সুরেশ দুবাই

থেকে বাড়িতে আসেন এবং

 

 

২০ তারিখে উনার মৃ’ত মায়ের আত্মা’র শান্তি কামনায় শ্রাদ্ধের আয়োজন করেন।

যেখানে প্রায় ১৫শ’ লোককে নিমন্ত্রণ করা হয়েছিলো।

সুরেশ ২৫ তারিখে করোনা পজিটিভ হিসেবে চিহ্নিত হয়। অ’তঃপর উনার পরিবারের

 

 

২৩ জনকে পরীক্ষা করা হলে ১১ জন করোনা পজিটিভ পাওয়া যায়। যেহেতু এটা

সংক্রমিত হয়, তাই ধারণা করা হচ্ছে দাওয়াতে আসা অনেকেই করোনা

ভাইরাসেআ,ক্রান্ত হতে পারে। তাইআ,ক্রান্ত ১২ জনকেই আইসোলেশনে রাখা হয়েছে।

 

ম’রেনা হা*সপা*তালের চিফ মে*ডিক্যা*ল অফিসার ডা. আর.সি. বান্ডিল বলেন,

সুরেশকে দুবাই এয়ারপোর্টেও পরীক্ষা করা হয়েছিলো কিন্তু সেখানে করোনা ভাইরাসের

কোন চিহ্ন পাওয়া যায়নি। বরং তিনি আসার দুইদিন আগেই তার স্ত্রী’ করোনায়আ,ক্রান্ত

হয়।

এ পর্যন্ত পুরো ভারতে করোনায়আ,ক্রান্তরো,গীর সংখ্যা ২৫৪৭ জন এবং মৃ’ত্যুর সংখ্যা

৬২জন। আর মধ্যপ্রদেশে এ পর্যন্তআ,ক্রান্তের সংখ্যা ১৫৪ জন।

 

দিল্লীর নিজামউদ্দিন দরগার পর মধ্যপ্রদেশের এই ঘটনা এখন পর্যন্ত ভারতের

উল্লেখযোগ্য করোনাভাইরাস ছড়ানোর মাধ্যম হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। সূত্র:এনডিটিভি

Print Friendly, PDF & Email